ঢাকা আরিচা মহাসড়কের পাশে সাইনবোর্ড প্রদর্শন করে খোলা জ্বালানি তেল ক্রয়-বিক্রয়

তপু ঘোষাল তপু ঘোষাল

স্টাফ রিপোর্টার

প্রকাশিত: ৩:০৬ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১১, ২০২৩ 262 views
শেয়ার করুন

ঢাকা জেলার সাভার উপজেলার তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের নিমেরটেক, শ্যামলি (সিএনজি) স্টেশন থেকে ২০০ মিটার উত্তরে ঢাকা আরিচা মহাসড়কের ঢাকাগামী পাশে, স্মার্ট মটরস এন্ড অয়েল নামে প্রদর্শিত একটি সাইনবোর্ড ঝোলানো। স্মার্ট মটরস এন্ড অয়েল এর সাইনবোর্ডে লেখা রয়েছে, সুদক্ষ স্পর্শে আধুনিকতার ছোয়া, এখানে ডিজেল, মবিল, অকটেন সুলভ মূল্য পাওয়া যায়।

যানা গেছে মহাসড়কে চলাচলকৃত যানবাহন ট্রাক, বাস, প্রাইভেটকার ও কভার্ডভ্যান সহ বিভিন্ন প্রকার গাড়ি থেকে ড্রাইভাররা চুরি করে এখানে তেল বিক্রি করে। চোরাই তেল কেনার জন্য মহাসড়কের পাশে দৃশ্যমান বড় ড্রাম, গ্যালন ও তেল বের করার পাইপ সহ সাইনবোর্ড ঝোলানো রয়েছে। চোরাইকৃত এই তেল সংরক্ষণ করার জন্য পাশেই রয়েছে একটি গোডাউন।

এখন প্রশ্ন হলো, এই তেল বিক্রি করা হয় কোথায়? এব্যাপারে সরেজমিনে ঐ তেলের দোকানে গিয়ে মালিক কে পাওয়া যাইনি, উপস্থিত কর্মচারি সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে কোন তথ্য না দিতে পারবেনা বলে জানায়। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ঐ এলাকার এক ব্যাক্তি বলেন, মোঃ সাত্তার (৪০) নামের এক ব্যাক্তি ওই দোকানের মালিক, সে ধরাছোঁয়ার বাইরে থেকে মোঃ মিজান কে দিয়ে ব্যাবসা পরিচালনা করে। এরপর মুঠোফোনে সাত্তার এর সাথে যোগাযোগ করে তাকে পাওয়া যায়নি।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে, সারাদেশে বিএনপি সহ বিরোধীদল গুলো যখন হরতাল, অবোরধ ডেকে সড়ক-মহাসড়কে যানবাহনে প্রতিনিয়ত অগ্নিকান্ড ঘটিয়ে চলেছে, ঠিক এই মুহূর্তে মহাসড়কের পাশে চোরাইকৃত এই খোলা তেলের দোকান কতটুকু নিরাপদ।

জানার জন্য সাভার হাইওয়ে থানার (ওসি) শেখ আবুল হাসান এর নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, মহাসড়কের পাশে এমন কোন স্থাপনা থাকলে তাদেরকে স্থাপনা সরিয়ে নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে, নির্দেশনা অমান্য করলে সাভার থানা পুলিশের সহযোগিতায় আইনগত ব্যবস্থাগ্রহণ করা হবে। এবিষয়ে সাভার মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা এর নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, মহাসড়কের পাশে এমন কোন দোকান থেকে থাকলে, তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করার ব্যবস্থা নেয়া হবে।