‘জনগণকে সরকারি খরচে আইনি সহায়তা দেয় লিগ্যাল এইড’

প্রকাশিত: ৩:৪৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২১ 157 views
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

‘জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থার পরিচালক ও সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ মো. সাইফুল ইসলাম বলেছেন, আর্থিকভাবে অসচ্ছল, সহায়-সম্বলহীন ও নানাবিধ আর্থ-সামাজিক কারণে বিচার প্রাপ্তিতে অসমর্থ বিচারপ্রার্থী জনগণকে সরকারি খরচে আইনি সহায়তা দিয়ে থাকে লিগ্যাল এইড। 

সরকার দেশের সাধারণ মানুষকে ন্যায়বিচার প্রাপ্তির জন্য লিগ্যাল এইড এর কার্যক্রম সক্রিয় করেছে।

 

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে উপজেলা ও ইউনিয়ন লিগ্যাল এইড কমিটিসমূহ সক্রিয়করণ ও সক্ষমতা বৃদ্ধি শীর্ষক অংশীজন সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মঙ্গলবার (২৮ সেপ্টেম্বর) বিকেল সাড়ে ৩টায় কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা লিগ্যাল এইড কমিটির আয়োজনে এবং জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা ও ইউএনডিপি’র উদ্যোগে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে এ অংশীজন সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় মো. সাইফুল ইসলাম বলেন, লিগ্যাল এইডের মাধ্যমে সরকারি খরচে যাদের বার্ষিক গড় আয় ১ লাখ টাকার ঊর্ধ্বে নয় এমন ব্যক্তিসহ শিশু ও মানব পাচারের শিকার ব্যক্তি, শারীরিক, মানসিক ও যৌন নির্যাতনের শিকার নারী ও শিশু, প্রতিবন্ধী, মুক্তিযোদ্ধা, অসচ্ছল বিধবাসহ অসহায় হতদরিদ্ররা আইনি সহায়তা নিতে পারবেন। এছাড়া সর্বস্তরের জনগণ লিগ্যাল এইডের মাধ্যমে আইনি সহায়তা গ্রহণ করতে পারবেন।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শামীম আহমদের সভাপতিত্বে ও সহকারী জজ মো. অলি উল্লাহর সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন, সিলেট জেলা লিগ্যাল এইড কমিটির চেয়ারম্যান এবং সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ মো. বজলুর রহমান, সিলেটের জেলা প্রশাসক এম. কাজী এমদাদুল ইসলাম, চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাউছার আহমেদ, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন,

পিপি অ্যাডভোকেট মো. নিজাম উদ্দিন, জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার মামুনুর রহমান সিদ্দিকী, গোয়াইনঘাটে সার্কেলের এএসপি প্রবাস কুমার সিংহ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুমন আচার্য, আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদের সদস্য ও বিজ্ঞ সরকারি কৌঁসুলি অ্যাডভোকেট মো. রাজ উদ্দিন, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ টি এম ফয়েজ উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মাহফুজুর রহমান,

আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা,আসক ফাউন্ডেশনের, সিলেট বিভাগীয় প্রেসিডেন্ট রকির আল মাহমুদ,  কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম নজরুল, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান লাল মিয়া, ইউপি চেয়ারম্যান বাবুল মিয়া ও ফরিদ উদ্দিন।

উপজেলা লিগ্যাল এইডের সদস্য কর্মকর্তাবৃন্দ, ইউপি চেয়ারম্যান, ইউপি সচিব, ইউপি সদস্য এবং সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে উক্ত অংশীজন সভা ও প্রশ্নোত্তর পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।